পোয়া মাছের উপকারিতা

পোয়া মাছের উপকারিতা

Akasnil Blog

পোয়া মাছের উপকারিতা

মাছে ভাতে বাঙ্গালী, বাংলাদেশের চিরাচরিত প্রবাদ। বাংলাদেশে পাওয়া যায় নানা রং ও স্বাদের মাছ। আকার, আকৃতিতে এরা যেমন বিচিত্র, নামগুলোও তেমনি নান্দনিক। বাংলাদেশে ২৬০ প্রজাতির স্বাদুপানির (মোহনাজলসহ) এবং ৪৭৫ প্রজাতির সামুদ্রিক মাছ দেখতে পাওয়া যায়। এছাড়াও ১২-এর অধিক প্রজাতির চাষকৃত বিদেশী মাছ চাষের জলাশয়ে এবং ৭০-এর অধিক জাতের বিদেশী বাহারী মাছ এ্যাকুয়ারিয়ামে পাওয়া যায়।


পোয়া মাছ :-

পোয়া মাছ বাংলাদেশের একটি মাছ যার বৈজ্ঞানিক নাম Pama pama। মাছটি সাধারণত বাংলাদেশের মোহনা  এবং বঙ্গোপসাগরেও পাওয়া যায়। অনেকে এটিকে পামা, কই ভোলা বা পোয়া বলে ডাকে।


পোয়া মাছের উপকারিতা:-

খাদ্য হিসেবে এই মাছটি খুবই সুস্বাদু। এর দেহে প্রায় ১৮ শতাংশ প্রোটিন বিদ্যামান। এটি স্বাদু পানির ও  সামুদ্রিক মাছ। সামুদ্রিক মাছ অনেকেরই প্রিয় খাবার। নিয়মিত এ মাছ খেলে বেশ কিছু সমস্যা থেকে মুক্ত থাকা যায়। সামুদ্রিক মাছে রয়েছে ওমেগা থ্রি ফ্যাটি অ্যাসিড, ভিটামিন এ এবং ভিটামিন ডি। এই সবকটি উপাদানই একাধিক জটিল রোগকে দূরে রাখে। সেই সঙ্গে সার্বিকভাবে শরীরের গঠনেও গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা পালন করে থাকে। 


 বাংলাদেশে কক্সবাজারের টেকনাফ উপজেলায় শাহপরীর দ্বীপে জেলেদের জালে ধরা পড়েছিল ১২৫ কেজি ওজনের একটি পোয়া মাছ, যা ১ লাখ ২০ হাজার টাকায় বিক্রি হয়েছিল।